জাপান থেকে ৬৮০ কোটি টাকার বিনিয়োগ পেল জেএমআই – শেয়ারবাজারনিউজ.কম

44


শেয়ারবাজার রিপোর্ট:দেশের ওষুধ ও চিকিৎসা সরঞ্জাম খাতের অন্যতম শীর্ষ প্রতিষ্ঠান জেএমআই গ্রুপের সঙ্গে পথচলার ১২ বছর অতিক্রম করেছে জাপানের স্বাস্থ্যসেবা খাতের শীর্ষ প্রতিষ্ঠান নিপ্রো কর্পোরেশন। এই সময়ে নিপ্রো-জেএমআইয়ের যৌথ বিনিয়োগের পাঁচটি প্রতিষ্ঠানে ৬৮০ কোটি টাকার (৮ কোটি মার্কিন ডলার) সরাসরি বিদেশি বিনিয়োগ এসেছে জাপান থেকে।

মঙ্গলবার রাতে রাজধানীর প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁও ঢাকায় “নিপ্রো-জেএমআই যৌথ বিনিয়োগ: বাংলাদেশের স্বাস্থ্যসেবা খাতে জাপানের মূলধন বিনিয়োগে দৃষ্টান্ত সৃষ্টিকারী” শিরোনামে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে এসব তথ্য তুলে ধরা হয়।

এসময় জানানো হয়, ২০১১ সালে চিকিৎসা সরঞ্জাম উৎপাদন খাতে বিনিয়োগের মাধ্যমে নিপ্রো-জেএমআই যৌথ পথচলা শুরু হয়। পরবর্তীতে ডায়ালাইসিস পরিষেবা, ওষুধ ও চিকিৎসা সরঞ্জাম উৎপাদন এবং বিপণনে ব্যবসা সম্প্রসারণ করেছে।

বর্তমানে নিপ্রো-জেএমআই যৌথ বিনিয়োগের পাঁচটি প্রতিষ্ঠানে প্রায় ৫,৫০০ কর্মী কাজ করছে। এসব প্রতিষ্ঠানে উৎপাদিত হচ্ছে ১০০টিরও বেশি পণ্য, যার মধ্যে ২৫টি প্রথমবারের মতো বাংলাদেশে তৈরি। এশিয়া, ইউরোপ, মধ্যপ্রাচ্য, দক্ষিণ আমেরিকা এবং আফ্রিকাসহ বিশ্বের ৪০ টিরও বেশি দেশে নিয়মিতভাবে রপ্তানি হচ্ছে নিপ্রো-জেএমআইয়ের পণ্য।

নিপ্রো-জেএমআইয়ের পথচলার ১২ বছর পূর্তি অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন বলেন, “বাংলাদেশে চিকিৎসা সরঞ্জামের বেশিরভাগ আমদানিনির্ভর। এই পরিস্থিতির মধ্যেই জেএমআই গ্রুপ বাংলাদেশে চিকিৎসা সরঞ্জাম উৎপাদনের পাশাপাশি রপ্তানিও করছে। এই প্রতিষ্ঠানের উৎপাদিত ফেস মাস্ক আমি নিজে সবসময় ব্যবহার করি এবং এটি খুবই মানসম্মত। বাংলাদেশের স্বাস্থ্যখাতের উন্নয়নে যৌথ বিনিয়োগের ক্ষেত্রে নিপ্রো কর্পোরেশন জেএমআই গ্রুপের সঙ্গে যুক্ত হওয়া নিঃসন্দেহে একটি প্রশংসনীয় উদ্যোগ।”

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান বলেন, “উন্নত দেশে পরিণত হওয়ার লক্ষ্যে বর্তমানে দেশে পরিকল্পিত উন্নয়ন চলছে। দেশি-বিদেশি উদ্যোক্তাদের জন্য ব্যবসার উপযুক্ত পরিবেশ তৈরি করে দিচ্ছি আমরা। সামনের দিনে নিপ্রো-জেএমআইয়ের যৌথ ব্যবসা আরও প্রসারিত হোক এই কামনা করছি।”

বাংলাদেশে নিযুক্ত জাপানের রাষ্ট্রদূত ইতো নাওকি বলেন, বিগত ৫০ বছরের মতো আগামী ৫০ বছরও বাংলাদেশে জাপানি বিনিয়োগ আসবে। এক্ষেত্রে আমরা চাই বেশি বেশি বেসরকারি বিনিয়োগ আসুক, বিশেষ করে বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের অংশীদার তৈরি হোক।

জাপান-বাংলাদেশের ব্যবসায়ীরা যৌথ ব্যবসার ক্ষেত্রে নিপ্রো-জেএমআইয়ের সাফল্যকে মডেল হিসেবে অনুসরণ করতে পারেন।

জেএমআই গ্রুপের প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আবদুর রাজ্জাক বলেন, “আমাদের দক্ষ মানবসম্পদ রয়েছে এবং আমরা দেশ ও মানুষের সেবায় প্রতিজ্ঞাবদ্ধ। আমাদের শুধু দরকার উন্নত প্রযুক্তি এবং বিনিয়োগ সহায়তা। এরইমধ্যে আমরা আমাদের সক্ষমতার প্রমাণ দিয়েছি। করোনার মধ্যে আমাদের নিপ্রো-জেএমআইয়ের প্রতিষ্ঠানে উৎপাদিত পণ্য দিয়ে গণটিকা কার্যক্রম সম্পন্ন হয়েছে। এখন পর্যন্ত সরকারকে ৩০ কোটি অটো-ডিজেবল সিরিঞ্জ সরবরাহ করেছি আমরা।”

দেশের চিকিৎসা সরঞ্জাম খাতের উদ্যোক্তাদের নতুন পণ্য উৎপাদনে উৎসাহিত করতে, সহজ শর্তে ঋণ প্রদানের দাবিও জানান মো. আবদুর রাজ্জাক।

নিপ্রো কর্পোরেশন গ্লোবাল বিজনেস বিভাগের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সুইয়োশি ইয়ামাজাকি জানান, বাংলাদেশের স্বাস্থ্যসেবা খাতের উন্নয়নে উল্লেখযোগ্য অবদান রাখছে নিপ্রো-জেএমআই। সামনের দিনেও আমরা নিপ্রো কর্পোরেশন, বাংলাদেশের স্বাস্থ্যসেবা খাতে যেকোন ধরণের সহায়তা দিতে প্রতিজ্ঞাবদ্ধ।”

এছাড়াও অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন জেএমআই গ্রুপের চেয়ারম্যান মো. জাবেদ ইকবাল পাঠান এবং নিপ্রো জেএমআই মেডিকেলের নির্বাহী পরিচালক কুনিও (কেনি) তাকামিদো।



Source link