দেড় বছরে মুক্তি পাবে আমিরের চার সিনেমা, একটি ওয়েব সিরিজ

44


তিন দশক ধরে বলিউডে রাজত্ব করছেন আমির খান। শিশু চরিত্রে বলিউডে যাত্রা শুরু। ১৯৮৮ সালে ‘কেয়ামত সে কেয়ামত তক’ সিনেমায় মূল চরিত্রে অভিনয়ের মাধ্যমে দর্শকদের মন জয় করেন এই অভিনেতা। একের পর এক হিট ছবি উপহার দিয়েছেন দর্শকদের। এমনকি ‘পদ্মশ্রী’ ও ‘পদ্মভূষণ’ সম্মানে ভূষিতও হন তিনি।

২০০১ সালে ‘লগান’ সিনেমার বিশ্বব্যাপী সাফল্যের পর নেন চার বছরের বিরতি। এর পর ‘ফানা’ ও ‘রং দে বাসন্তি’ সিনেমায় মূল চরিত্রে অভিনয় করতে দেখা যায় আমিরকে। ‘তারে জমিন পর’ সিনেমার মাধ্যমে পরিচালনার জগতেও প্রথম পা রাখেন তিনি। একে একে ‘৩ ইডিয়েটস’, ‘পিকে’, ‘গজনি’-এর মতো ব্যবসাসফল সব সিনেমায় অভিনয় করেছেন আমির খান।

২০১৮ সালে সর্বশেষ ‘থাগস অব হিন্দুস্থান’ বড়পর্দায় মুক্তি পেয়েছিল। কিন্তু বক্স অফিসে ফ্লপ করেছিল এই সিনেমা। এর পরে আমির আবার চার বছরের জন্য সিনেমাজগত থেকে সরে গিয়েছিলেন। কিন্তু এই সাময়িক বিরতির পর তিনি আবার বড়পর্দায় ফিরছেন। শুধু তা-ই নয়, আগামী ১৭ মাসে আমির অভিনীত চারটি সিনেমা প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেতে চলেছে।

এমনকি, তাঁর কর্মজীবনে এই প্রথমবার ওয়েব সিরিজে অভিনয় করতে চলেছেন আমির। সম্প্রতি ‘প্রীতম পেয়্যারে’ নামক ওয়েব সিরিজে একটি গানের দৃশ্যে শুটিংয়ের জন্য রাজস্থানে গিয়েছিলেন আমির। এই সিরিজে আমিরপুত্র জুনায়েদকেও প্রথম অভিনয় করতে দেখা যাবে।

আমির খান। ছবি: টুইটার

আগস্ট মাসে মুক্তি পাচ্ছে আমিরের বহুল প্রতিক্ষীত ‘লাল সিং চাড্ডা’। হলিউডের বিখ্যাত সিনেমা ‘ফরেস্ট গাম্প’-এর গল্পের অনুসরণে এই সিনেমাটি বানানো হয়েছে। আমির খান ও কারিনা কাপুর খান ছাড়াও দক্ষিণী অভিনেতা নাগা চৈতন্যও এই সিনেমায় অভিনয় করবেন। শোনা যাচ্ছে, শাহরুখ খান থাকবেন অতিথি চরিত্রে।

শুধু ইংরেজি সিনেমাই নয়, এই বছর আরও একটি বিদেশি সিনেমার গল্পের অনুকরণে হিন্দি রিমেক বানানো হবে। ২০১৮ সালে ‘ক্যামপিওনস’ (চ্যাম্পিয়নস) নামের একটি স্প্যানিশ স্পোর্টস ড্রামা সিনেমায় অভিনয় করবেন বলে জানান আমির। তাঁর ৫৭তম জন্মদিনে এই সিনেমার ঘোষণা করা হয়।

অভিনেত্রী রেবতীর পরিচালনায় মুক্তি পাচ্ছে ‘সালাম ভেঙ্কি’। নারী চরিত্রকেন্দ্রিক এই সিনেমায় মুখ্য চরিত্রে অভিনয় করবেন কাজল। আমির খান ছোট একটি চরিত্রে অভিনয় করবেন এই সিনেমায়। ২০০৬ সালে ‘ফানা’ সিনেমাটি মুক্তি পাওয়ার পর আমির-কাজল জুটি দর্শকদের মন জয় করেছিল। আবার ১৬ বছর পর এই জুটি একসঙ্গে বড়পর্দায় কাজ করতে চলেছে।

২০১০ সালে টরেন্টো আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে মুক্তি পাওয়া ‘ধোবি ঘাট’ সিনেমাটি পরিচালনা করেছিলেন কিরণ রাও। এই সিনেমার প্রযোজনার সঙ্গে যুক্ত ছিলেন আমির খানও। শুধু ভারতেই নয়, এই সিনেমা বিদেশের দর্শকদেরও মন জিতেছিল। ‘ধোবি ঘাট’ মুক্তির প্রায় দশ বছর পর আবার আমির-কিরণ একসঙ্গে কাজ করতে চলেছেন ‘টু ব্রাইডস’ নামের বলিউড সিনেমায়। বিবাহ-বিচ্ছেদের পর আমির-কিরণের প্রথম কাজ এটি। স্পর্শ শ্রীবাস্তব, প্রতিভা রন্ত এবং নিতাংশী গোয়েলকে এই সিনেমায় মুখ্য চরিত্রে দেখা যাবে। আমির এই সিনেমায় প্রযোজকের দায়িত্ব ছাড়াও একটি গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে অভিনয় করবেন। ২০২২ সালেই সিনেমাটি মুক্তি পাবে বলে জানা যায়।





Source link