অস্ট্রেলিয়ার ‘হয়েটস’-এ প্রথম বাংলাদেশি সিনেমা

26


বিশ্বের প্রথম সারির সিনেমা প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে ‘হয়েটস’ অন্যতম।  অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ড এর ৫০ টিরও বেশি শহরে রয়েছে ‘হয়েটস’ এর শাখা। আর প্রথমবারের মত ‘হয়েটস’ এর ওয়েবসাইট থেকে সরাসরি বাংলাদেশি কোন সিনেমার টিকেট বিক্রি হবে। এই নতুন ইতিহাসের সূচনা হচ্ছে বহুল আলোচিত  চলচ্চিত্র ‘রিকশা গার্ল’ দিয়ে। আগামী ৮ জুন থেকে নন্দিত পরিচালক অমিতাভ রেজার এই চলচ্চিত্রটি অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ড এর বাংলাদেশি অধ্যুষিত শহরের সিনেমা হলগুলোতে পর্যায়ক্রমে মুক্তি পাচ্ছে। আর এই আয়োজন সম্ভব হয়েছে অস্ট্রেলিয়া ভিত্তিক পরিবেশনা প্রতিষ্ঠান এবং সিনেমাটির সহযোগী প্রযোজক ‘বঙ্গজ ফিল্মস’ এর প্রচেষ্টায়।

ইতিমধ্যে ‘হয়েটস’ এর ওয়েবসাইটে শোভা পাচ্ছে ‘রিকশা গার্ল’ চলচ্চিত্রের পোস্টার সম্বলিত প্রয়োজনীয় খুঁটিনাটি এবং ট্রেইলার। এবং টিকেট কেনার ক্ষেত্রে ডাইন এন্ড ডিস্কভার এবং প্যারেন্ট ভাউচারও ব্যবহার করা যাবে।

‘বঙ্গজ ফিল্মস’ এর প্রতিষ্ঠাতা তানিম মান্নান। ছবি: ফেসবুক

এ প্রসঙ্গে ‘বঙ্গজ ফিল্মস’ এর প্রতিষ্ঠাতা তানিম মান্নান বলেন, ‘সিনেমাবিশ্বে ‘‘হয়েটস’’ খুবই পরিচিত একটি নাম এবং এটি অস্ট্রেলিয়ার বৃহত্তম মুভি প্রদর্শনকারী কোম্পানি হিসেবে পরিচিত। এবারই প্রথম বাংলাদেশি কোনো চলচ্চিত্র যুক্ত হয়েছে  ‘হয়েটস’ এর প্রদর্শনীতে। আর তা নিঃসন্দেহে ‘‘রিকশা গার্ল’’ ও বাংলাদেশের সিনেমার জন্য বেশ বড় খবর। আমি অস্ট্রেলিয়ায় বসবাসরত বাংলাদেশি ও সবাইকে সিনেমা হলে এসে সিনেমাটি উপভোগ করার জন্য অনুরোধ জানাচ্ছি।’

২০১৬ থেকে অস্ট্রেলিয়াতে নিয়মিতভাবে বাংলা চলচ্চিত্র প্রদর্শনির আয়োজন করে আসছে ‘বঙ্গজ ফিল্মস’। এখন পর্যন্ত দুই বাংলা থেকে ৩২ টি সিনেমার স্ক্রিনিং করেছে প্রতিষ্ঠানটি। তবে এই আয়োজনগুলো হয়ে আসছে প্রাইভেট স্ক্রিনিং পদ্ধতিতে। এতদিন ‘হয়েটস’ এর ওয়েবসাইটে বাংলা সিনেমার টিকেট কেনা যায়নি, অন্যকোন টিকেটিং ওয়েবসাইটের মাধ্যমে কিনতে হত। রিকশা গার্ল’ চলচ্চিত্রের মাধ্যমে বাংলা সিনেমা এই সীমাবদ্ধতা কাটিয়ে মূলধারার বানিজ্যিক সিনেমার কাতারে শরিক হলো।

‘হয়েটস’ এর ওয়েবসাইট থেকে সরাসরি বাংলাদেশি কোন সিনেমার টিকেট বিক্রি হবে। ছবি: বঙ্গজ ফিল্মস এর আগে মে মাসজুড়ে যুক্তরাষ্ট্রের ১৮ অঙ্গরাজ্যের ৫২ শহরে প্রদর্শিত হয় ‘রিকশা গার্ল’ চলচ্চিত্রটি। দেশটির যেসব অঙ্গরাজ্যে সিনেমাটি প্রদর্শিত হয়েছে সেগুলো হলো- নিউইয়র্ক, নিউজার্সি, পেনসিলভানিয়া, টেক্সাস, ম্যাসাচুসেটস, ভার্জিনিয়া, ম্যারিল্যান্ড, ফ্লোরিডা, ওহাইও, ওকলাহোমা, লুইজিয়ানা, অ্যারিজোনা, অরেগন, নর্থ ক্যারোলাইনা, ইলিনয়, মিশিগান, ওয়াশিংটন ও ক্যালিফোর্নিয়া।

বাংলাদেশে এখনো মুক্তির অপেক্ষায় থাকা ‘রিকশা গার্ল’ অমিতাভ রেজার দ্বিতীয় চলচ্চিত্র। ‘আয়নাবাজি’ সিনেমার মাধ্যমে দর্শকদের মন জয় করে নিয়েছিলেন তিনি। রিকশা গার্ল’ নির্মিত হয়েছে ভারতীয় বংশোদ্ভূত যুক্তরাষ্ট্রের লেখক মিতালি পারকিনসের কিশোর সাহিত্য অবলম্বনে। ‘নাইমা’ নামের এক কিশোরী’র জীবনযুদ্ধকে ঘিরে আবর্তিত হয়েছে এ সিনেমার গল্প।  নভেরা রহমান সিনেমাতে ‘নাইমা’ চরিত্রে অভিনয় করেছেন। এছাড়া সিনেমাটিতে আরও রয়েছেন চম্পা, মোমেনা চৌধুরী, নরেশ ভূঁইয়া, এ্যালেন শুভ্র ও অন্যরা। ‘রিকশা গার্ল’র চিত্রনাট্য লিখেছেন নাসিফ ফারুক আমিন ও শর্বরী জোহরা আহমেদ।

‘রিকশা গার্ল’ সিনেমার দৃশ্য। ছবি: বঙ্গজ ফিল্মস যুক্তরাষ্ট্রের ‘প্রেসকট ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল’, জার্মানির ‘শ্লিঙ্গেল ইন্টারন্যাশনাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল’ সহ বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্র উৎসবে পুরস্কার জিতেছে ও সিনেমাবোদ্ধাদের প্রশংসা কুড়িয়েছে ‘রিকশা গার্ল’। বাংলাদেশ ও যুক্তরাষ্ট্রের যৌথ প্রযোজনায় নির্মিত ‘রিকশা গার্ল’ সিনেমার প্রযোজকরা হলেন, জিয়াউদ্দিন আদিল, ফরিদুর রেজা সাগর ও এরিক জে অ্যাডামস।





Source link