স্বামীকে অধিনায়কত্ব না দেওয়ায় বোর্ডের ওপর ক্ষোভ ঝাড়লেন স্ত্রী

9


২০১৮ সালে বল বিকৃতি কাণ্ডে তখনকার অধিনায়ক স্টিভ স্মিথ ও সহ-অধিনায়ক ডেভিড ওয়ার্নারকে এক বছরের নিষেধাজ্ঞা দিয়েছিল ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। দুজনকেই ক্রিকেটে ফেরানো হলেও, স্মিথ এবং ওয়ার্নার কখনো দেশকে নেতৃত্ব দিতে পারবেন না বলে তখন জানিয়ে দেয় ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া।

গত বছর অবশ্য টেস্ট দলের সহ অধিনায়ক করা হয়েছিল স্মিথকে। ওয়ার্নারের স্ত্রী ক্যান্ডিস এবার দাবি করছেন ওয়ার্নারের অধিনায়কত্বেও নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়া উচিত।
 
ক্যান্ডিসের মনে করেন, নিজেদের একরোখা মনোভাবের জন্য ওয়ার্নারের ক্রিকেট মেধা ব্যবহার করতে পারছে না অস্ট্রেলিয়া। অস্ট্রেলিয়ার একটি রেডিওতে দেওয়া সাক্ষাৎকারে নিজের ক্ষোভ প্রকাশ করে ওয়ার্নারের স্ত্রী বলেছেন, ‘সে সংযুক্ত আরব আমিরাতে গিয়ে (আইপিএলের দলকে) নেতৃত্ব দিতে পারে। সবাই ওর ক্রিকেট মস্তিষ্কের প্রশংসা করছে। সবাই দেখছে অধিনায়ক হিসাবে ও কী করতে পারে।’

সাক্ষাৎকারে সেই কঠিন সময়গুলোর স্মৃতিচারণও করেন ক্যান্ডিস। তিনি বলেন, ‘ওই ঘটনা নিয়ে আমার স্বামীকে কোনো প্রশ্ন করতে চাইনি। সব সময় পাশে থাকার চেষ্টা করেছি। আমি চেষ্টা করতাম ওয়ার্নারকে যতটা সম্ভব শক্ত রাখতে। অন্য কিছু নিয়ে ভাবতাম না। তখন আমাদের পরিবারের একটাই চিন্তা ছিল—   এর পর কী হবে। প্রতিটা দিন কীভাবে কাটবে, তাই নিয়ে ভাবতাম আমরা। বিশ্বাস ছিল, ওয়ার্নার সুযোগ পাবেই। পরে কানাডা এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজে খেলার সুযোগ পায়। যে কোনো ক্রীড়াবিদের জন্যই সেটা কঠিন সময়। পাশে পাশে থাকার চেষ্টা করতাম। যাতে বেশি হতাশ না হয়, সে দিকে খেয়াল রাখতাম।’





Source link