ফাইনালের অব্যবস্থাপনায় ক্ষমা চাইল উয়েফা

16


চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালের আগে স্টাড ডে ফ্রান্স স্টেডিয়ামের বাইরে ছিল চরম রকমের বিশৃঙ্খলা। ফ্রান্স পুলিশের মারধরের শিকার হয়েছিলেন রিয়াল মাদ্রিদ ও লিভারপুলের সমর্থকেরা। অব্যবস্থাপনা নিয়ে সমালোচনার মুখে দুই দলের সমর্থকদের কাছে আনুষ্ঠানিক ক্ষমা চেয়েছে ইউরোপিয়ান ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা উয়েফা।

শুক্রবার রাতে বিবৃতিতে রিয়াল মাদ্রিদ ও লিভারপুলের সমর্থকদের কাছে ক্ষমা চেয়ে উয়েফা বলেছে, ‘আর কোনো ফুটবল সমর্থক এমন পরিস্থিতির মুখে পড়বে না। আর কোনো দিন যেন এমন পরিস্থিতি তৈরি না হয়, সেদিকে উয়েফা সতর্ক দৃষ্টি রাখবে। ফাইনাল শুরুর আগে সমর্থকেরা যে ভীতিকর ও পীড়াদায়ক পরিস্থিতির মুখোমুখি হয়েছে, সে জন্য উয়েফা সব দর্শক, ফুটবল সমর্থকদের কাছে ক্ষমা প্রার্থনা করছে।’

ফাইনালের ‘ভুয়া টিকিট’ নিয়ে মাঠে ঢুকছে দর্শকেরা—এমন গুঞ্জন ওঠার পর গত শনিবার রাতে পুলিশের হাতে হেনস্তার শিকার হন রিয়াল মাদ্রিদ ও লিভারপুলের সমর্থকেরা। স্টেডিয়ামের বাইরে দর্শকদের দিকে কাঁদানে গ্যাস ও পিপার স্প্রে ছোড়ে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। নির্ধারিত সময়ের আধা ঘণ্টারও বেশি সময় পর শুরু হয় খেলা। এমন পরিস্থিতির জন্য দাঙ্গাবাজ ইংলিশ সমর্থকদেরই দোষ দিয়েছিলেন ফ্রান্সের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জেরাল্ড ডারমানিন।

বৈধ টিকিট থাকার পরও খেলা দেখতে পারেনি অনেকে। টিকিট থাকার পরও যেসব দর্শক খেলা দেখতে পারেনি, তাদের ‘দ্রুত’ ক্ষতিপূরণ দেওয়ার নির্দেশ দেন ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইম্যানুয়েল ম্যাক্রো। 

পুলিশি হামলার পর ক্ষমা চাওয়ার দাবি জানানো হয় দুই দলের সমর্থকদের পক্ষ থেকে। দাবির কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই আনুষ্ঠানিকভাবে ক্ষমা চাইল উয়েফা।





Source link