রুশ বাহিনী ১১৩ গির্জা গুঁড়িয়ে দিয়েছে: জেলেনস্কি

24


যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর থেকে রুশ বাহিনী এ পর্যন্ত ইউক্রেনের ১১৩টি গির্জা গুঁড়িয়ে দিয়েছে বলে দাবি করেছেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি। স্থানীয় সময় শনিবার রাতে তাঁর নিয়মিত ভিডিও ভাষণে প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি এ দাবি করেছেন বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে মার্কিন গণমাধ্যম সিএনএন। 

জেলেনস্কি বলেন, ‘গুঁড়িয়ে দেওয়া গির্জাগুলোর মধ্যে অনেক প্রাচীন গির্জাও রয়েছে। এসব গির্জা দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময়েও টিকে ছিল। কিন্তু রুশ বাহিনীর ভয়াবহ হামলার মুখে টিকতে পারল না।’ 

এ ছাড়া তুলনামূলক কম প্রাচীন কিছু গির্জাও রুশ বাহিনী ধ্বংস করেছে বলে জানান জেলেনস্কি। তিনি বলেন, ‘কিছু গির্জা ১৯৯১ সালের পরে নির্মাণ করা হয়েছিল। একটি প্রাচীন গির্জা সোভিয়াতোহিরস্ক লাভরার পুনর্নির্মাণ কাজ ২০০১ সালে শুরু করা হয়েছিল। আসছে ১০ জুন ছিল গির্জাটির পুনর্নির্মাণ বার্ষিকী উৎসব। সেই গির্জাও ধ্বংস করেছে রুশ বাহিনী।’ 

জেলেনস্কি আরও বলেন, ‘গত বুধবার রুশ বাহিনীর হামলায় লাভরায় তিন সন্ন্যাসী নিহত হয়েছেন। সেখানে হামলা করা এখনো থামায়নি তারা। লাভরা থেকে মাঝে মাঝে কামানের গোলা বিস্ফোরণের শব্দ ভেসে আসছে।’ 

এই গির্জায় হামলা হওয়াতে বিস্মিত হয়েছেন প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি। তিনি বলেন, ‘লাভরা গির্জার সঙ্গে মস্কোর অর্থোডক্স গির্জার সম্পর্ক রয়েছে। তারপরও রুশ বাহিনী এখানে হামলা করেছে।’ 

ইউক্রেনে রাশিয়া হামলা শুরু করার পর ১০০ দিন পেরিয়ে গেছে। এরই মধ্যে শত শত বেসামরিক লোকের মৃত্যু হয়েছে। ধ্বংসস্তূপে পরিণত অনেক শহর। উদ্বাস্তু হয়েছে লাখ লাখ মানুষ। প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি বলেছেন, ইউক্রেনের ভূখণ্ডের প্রায় ২০ শতাংশ ইতিমধ্যে নিয়ন্ত্রণে নিয়েছে রাশিয়া।





Source link