যুক্তরাষ্ট্রে কুচকাওয়াজে হামলাকারী সন্দেহভাজন তরুণ আটক

20


যুক্তরাষ্ট্রের শিকাগো শহরের উপকণ্ঠে স্বাধীনতা দিবসের কুচকাওয়াজে বন্দুক হামলার ঘটনায় সন্দেহভাজন এক তরুণ আটক করেছে যুক্তরাষ্ট্রের পুলিশ। আটক তরুণের নাম রবার্ট ই ক্রিমো থ্রি। ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসি এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে। 

স্থানীয় সময় সোমবার বন্দুকধারীর গুলিতে শিকাগোর হাইল্যান্ড পার্কের কুচকাওয়াজে ৬ ব্যক্তি নিহত হন এবং ২৪ জন আহত হন। আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। 

মার্কিন পুলিশ জানিয়েছে, আটক রবার্ট ই ক্রিমোর বয়স ২২। তাঁকে ধাওয়া করে আটক করা হয়েছে। তিনি একটি উচ্চ ক্ষমতাসম্পন্ন রাইফেল থেকে গুলি ছুড়ে এ হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছেন। স্থানীয় সময় সকাল সোয়া দশটার দিকে কুচকাওয়াজ শুরু হওয়ার কিছু পরেই তিনি গুলি করতে শুরু করেন। 

পুলিশ আরও জানিয়েছে, কুচকাওয়াজ স্থলের কাছের একটি দোকানের ছাদ থেকে তিনি গুলি চালিয়েছিলেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। তাঁর কাছ থেকে আগ্নেয়াস্ত্রের প্রমাণ উদ্ধার করা হয়েছে। 

আনন্দ নামের একজন প্রত্যক্ষদর্শী বিবিসিকে বলেছেন, ‘আমি এ শহরে নিজেকে খুব নিরাপদ মনে করতাম। কিন্তু আজ যা ঘটল তা খুবই বিরল। অস্বাভাবিক একটা ব্যাপার। প্রথমে ভেবেছিলাম কোনো গাড়ির টায়ার বিস্ফোরণ ঘটেছে। লোকজন ভয়ে দৌড়াতে শুরু করে। আমরাও দৌড়াতে শুরু করি।’ 

নোয়েল হারা নামের আরেক প্রত্যক্ষদর্শী বলেছেন, তিনি তাঁর ছেলেকে কুচকাওয়াজের জায়গায় নামিয়ে দিয়ে স্টারবাকসে সকালের নাশতা করছিলেন। হঠাৎ করেই বিশৃঙ্খলার আওয়াজ শুনতে পান। পরে তিনিসহ আরও অনেকে স্টারবাকসের শৌচাগারে আশ্রয় নেন। 

পুলিশ জানিয়েছে, আটক ক্রিমোর বিরুদ্ধ এখনো কোনো অভিযোগ নথিভুক্ত করা হয়নি। তিনি কোন উদ্দেশ্যে হামলা চালিয়েছেন সেটিও স্পষ্ট নয়। 

এদিকে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমগুলো ক্রিমোর অ্যাকাউন্ট স্থগিত করে দিয়েছে। 

গত কয়েক সপ্তাহ ধরে যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুক হামলা নিয়মিত বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে। ইলিনয়ের গভর্নর জে রবার্ট প্রিটজকার বলেছেন, ‘বন্দুক হামলা দিনে দিনে আমেরিকান ঐতিহ্য হয়ে উঠছে। তারপরও অনেকেই বলবেন, বন্দুক হামলা নিয়ে কথা বলার সময় এখন নয়। কিন্তু আমি বলব, এর চেয়ে ভালো দিন আর নেই। এখনই বন্দুক সহিংসতা বন্ধ করতে হবে।’ 





Source link