পরমাণু আলোচনা আবারও শুরু করতে সম্মত ইরান–ইইউ

10


আবারও পরমাণু আলোচনা শুরুর ব্যাপারে সম্মত হয়েছে ইরান ও ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ)। ইউরোপীয় ইউনিয়নের পররাষ্ট্রনীতি বিষয়ক প্রধান জোসেফ বোরেলের তেহরান সফরকালে দুই পক্ষ এই বিষয়ে সম্মত হয়েছে। সফরের সময় গত মার্চে স্থবির হয়ে যাওয়া যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে ইরানের আলোচনা আবারও চালুর বিষয়েও আলোচনা হয়। 

কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল জাজিরার এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, স্থানীয় সময় শনিবার ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী হোসেইন আমির আব্দুল্লাহিয়ান এবং জোসেফ বোরেল এক যৌথ সংবাদ সম্মেলনে তাঁরা নতুন করে আলোচনা শুরুর ঘোষণা দেন। 

আল জাজিরার প্রতিবেদনে বলা হয়, দুই পক্ষের নেতার মধ্যে ‘দীর্ঘ তবে ইতিবাচক’ আলোচনার পর তাঁরা ইইউয়ের মধ্যস্থতায় যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আবারও পরমাণু কর্মসূচি নিয়ে পরোক্ষ আলোচনা শুরুর ব্যাপারেও একমত হয়েছেন। 

সংবাদ সম্মেলনে হোসেইন আমির আব্দুল্লাহিয়ান বলেন, ‘ইরানের জন্য যে বিষয় সবচেয়ে বেশি গুরুত্বপূর্ণ তা হলো—মূল পরিকল্পনার আওতায় ইরানের অর্থনৈতিক স্বাধীনতা নিশ্চিত করা।’ তিনি আরও বলেন, ‘ঘটনা যাই হোক আমরা এমন কোনো শর্তে রাজি হব না যাতে ইরানের অর্থনীতি এবং ইরান সরকারের ওপর নেতিবাচক প্রভাব ফেলবে।’ 

ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আরও বলেন, ‘আমরা সুনির্দিষ্টভাবে আশা করছি যে—এবার চুক্তির চূড়ান্ত লক্ষ্যমাত্রায় পৌঁছতে আমেরিকা বাস্তববাদী হয়ে ন্যায্যতা ও দায়িত্বশীলতার সঙ্গে এগিয়ে আসবে।’ এ সময় বোরেলও তাঁর কথায় সায় দিয়ে আলোচনা থেকে ইতিবাচক ফলাফল বেরিয়ে আসবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন। তিনি বলেন, ‘এই আলোচনা সফল হলে ইরান এবং বিশ্ব উভয়ই উপকৃত হবে।’ 

বোরেল আরও জানান, আলোচনা সফল হলে ইইউ যখন ইরানের ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা তুলে নেবে তখন তিনি আবারও ইরান সফরে আসতে চান। 

এর আগে, গত ২৪ মে জোসেফ বোরেল এবং তাঁর সহকারী এনরিকো মোরা তেহরান পৌঁছান। এরপর তাঁরা ইরানের পক্ষে পরমাণু আলোচনার প্রধান আলোচক আলী বাঘেরি কানি এবং দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী আমির আব্দুল্লাহিয়ানের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন।





Source link