ইউক্রেনের স্বাধীনতা দিবসে কিয়েভে বরিস, ১ হাজার ড্রোন সরবরাহের ঘোষণা 

41


ইউক্রেনের স্বাধীনতা দিবসে দেশটির রাজধানী কিয়েভ ভ্রমণ করেছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন। এক আকস্মিক সফরে তিনি স্থানীয় সময় বুধবার কিয়েভ পৌঁছান তিনি। সেখানে তিনি দেশটির প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কির সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন এবং তিনি ইউক্রেনের জন্য ৫৪ মিলিয়ন ডলার সহায়তা ঘোষণা করেন। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি নিউজের এক প্রতিবেদন থেকে এই তথ্য জানা গেছে। 

ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন এক টুইটে বলেছেন, ‘যুক্তরাজ্য ইউক্রেনীয় বন্ধুদের পাশে থাকবে। আমি বিশ্বাস করি ইউক্রেন এই যুদ্ধে জয়ী হতে পারে এবং জয়ী হবে।’ যুদ্ধ শুরু হওয়ার ছয় মাসের মধ্যে এটি বরিস জনসনের তৃতীয় দফা কিয়েভ সফর। ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী হিসেবে এটি সম্ভবত তাঁর সর্বশেষ সফর। এই সফরে তাঁকে ইউক্রেনের স্বাধীনতার সমর্থনের জন্য ইউক্রেনের পক্ষ থেকে ‘দ্য অর্ডার অফ লিবার্টি’ পুরস্কার দেওয়া হয়।

ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন ১০ নম্বর ডাউনিং স্ট্রিটের একটি সূত্র জানিয়েছে, এই সহায়তার আওতায় ইউক্রেনকে ২০০টি ড্রোন সরবরাহ করা হবে। যাতে দেশটি নিজেদের প্রতিরক্ষা এবং শত্রুপক্ষের গতিবিধি নজরদারির সক্ষমতা বৃদ্ধি করতে পারে। এই প্যাকেজে আরও ৮৫০ ছোট আকারের ড্রোন সহায়তা দেওয়া হবে। ছোট-বড় সব মিলিয়ে ১ হাজারেরও বেশি ড্রোন সরবরাহ করা হবে।

ডাউনিং স্ট্রিট আরও জানিয়েছে, ইউক্রেনের সামরিক বাহিনীর সদস্যদের হেলিকপ্টার ড্রোন উড়ানোর জন্য প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। এবং একই সঙ্গে ইউক্রেনের সামরিক বাহিনীর যুদ্ধ প্রশিক্ষণ দেওয়াও অব্যাহত রাখবে যুক্তরাষ্ট্র। আগামী সপ্তাহগুলোতে সমুদ্রের বাইরে বিস্ফোরক শনাক্ত করতে মাইনহান্টিং যান কীভাবে ব্যবহার করতে হয় তাও শেখানো হবে।





Source link